বাণিজ্য সময় 'সংশোধিত ব্যাংক কোম্পানি আইনের মাধ্যমে সম্পদ কেন্দ্রীভূত হবে'

১৭-০১-২০১৮, ১৮:১৫

হরিপদ সাহা

fb tw
একই পরিবারের ৪ জন পরিচালক নিয়োগের সুযোগ রেখে পাস হওয়া সংশোধিত ব্যাংক কোম্পানি আইনের মাধ্যমে সম্পদ কেন্দ্রীভূত হবে বলে মনে করেন, অর্থনীতিবিদ ও সাবেক ব্যাংকার।
তারা মনে করেন, ব্যাংক মালিকদের চাপেই এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে, যা আমানতকারীদের জন্য ঝুঁকি তৈরি করতে পারে। তবে ব্যাংকের উদ্যোক্তারা বলছেন, আইনে পরিবর্তন আনা হলেও, পরিচালনা পর্ষদের কাজের জবাবদিহিতা থাকবে আগের মতই।
কয়েকজন সংসদ সদস্যের বিরোধিতা ও জাতীয় পার্টির ওয়াক আউটের মধ্যেই গতকাল পাস হয়, সংশোধিত ব্যাংক কোম্পানি আইন।
গতবছর মন্ত্রীসভায় অনুমোদন দেয়ার পর থেকেই আইনের সংশোধনী নিয়ে নানা মহলে শুরু হয় সমালোচনা। সংশোধিত ব্যাংক কোম্পানি আইন অনুযায়ী পর্ষদে একই পরিবারের ২ জনের পরিবর্তে ৪ জন পরিচালক রাখার সুযোগ রয়েছে।
সেইসাথে পরিচালকদের মেয়াদও ৬ বছর থেকে বেড়ে হয়েছে টানা ৯ বছর। তিনবছর বিরতির পর আবারো ৯ বছরের জন্য পরিচালক মনোনীত হওয়ার সুযোগ রয়েছে নতুন আইনে। এতে কোন একটি পরিবারের কর্তৃত্ব বাড়বে ব্যাংকের পর্ষদে, যা এ খাতে ঝুঁকি বাড়াবে বলে মনে করেন অর্থনীতিবিদ ও পর্যবেক্ষকরা।
কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সাবেক ডেপুটি গভর্নর খোন্দকার ইব্রাহীম খালেদ বলেন, 'জনগণের টাকা থাকে শতকরা নব্বই ভাগের বেশি। সেই জনগণের টাকা ব্যবহার করবে। পরিচালক বেশি থাকলে কিছুটা ডাইভার্স হয়। আর একটি পরিবার থাকলে এই টাকাটা একটি পরিবারই ব্যবহার করবে। এর মানে আমরা আবার সেই সম্পদ কেন্দ্রীভূত করার দিকে যাচ্ছি।'
অর্থনীতিবিদ এম এম আকাশ বলেন, 'রাষ্ট্রের নিয়ন্ত্রণকারী কর্তৃপক্ষ কতগুলো আইন তৈরি করে নিয়ন্ত্রণের জন্য এবং সুশাসনের জন্য। পরে যখন লবি করে চাপ দেয়া হয়, বেসরকারি খাতের ব্যাংক মালিকরা যখন চাপ দিলো তখন রাষ্ট্র পিছু হটলো কেনো? ব্যাংক যে অল্প কিছু লোকের স্বার্থে কাজ করবে সেটা তো না। সমাজের চাহিদা অনুযায়ী বিনিয়োগ করতে হবে। কিন্তু এখন সেটা নিয়ন্ত্রিত হবে অল্প কিছু লোকের দ্বারা। সেটাই তো ব্যাংকের সবচেয়ে বড় ঝুঁকি।'
অর্থনীতিবিদদের সাথে দ্বিমত পোষণ করেন ব্যাংকের উদ্যোক্তারা বলছেন কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নজরদারি থাকায় এই সংশোধনীর ফলে কোনো ঝুঁকিই তৈরি হবে না।
এনআরসিসি ব্যাংকের চেয়ারম্যান এস এম পারভেজ তমাল বলেন, 'বাংলাদেশ ব্যাংকের গাইডলাইনে কিন্তু প্রতিটি পদে পদে ডিরেক্টরের দায়িত্ব কি হবে সেটা লেখা আছে। পুরো বোর্ডে একজন যদি দ্বিমত করে তাহরে সেটা কিন্তু হয় না।'
১৯৯১ সালে ব্যাংক কোম্পানি আইন পাসের পর এ নিয়ে ষষ্ঠবারে মত আইন সংশোধন করে পরিচালকের মেয়াদ ও নিয়োগের ধারা পরিবর্তন করা হলো।

করোনা ভাইরাস লাইভ

আরও সংবাদ

stay home stay safe
বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
এক্সক্লুসিভ লাইভ
বিপিএল ২০২০

করোনা ভাইরাস লাইভ

আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop