প্রবাসে সময় কাতার প্রবাসী জালালের সফলতা

২৪-০২-২০২১, ০১:২১

আনোয়ার হোসেন মামুন

fb tw
কাতার প্রবাসী জালালের সফলতা
05
মধ্যপ্রাচ্যের তেল সমৃদ্ধ সম্ভাবনাময় একটি দেশ কাতার। এটি পারস্য উপসাগরের ছোট দেশ, গরম ও মরুভূমির দেশ। মাথাপিছু আয়ে বর্তমানে পৃথিবীর সবচাইতে ধনী দেশও কাতার, ২০২২ সালের ফুটবল বিশ্বকাপের আয়োজক দেশও কাতার, ফুটবল বিশ্বকাপ ঘিরে ব্যাপক উৎস বিরাজ করছে দেশটিতে। 
দেশটিতে বর্তমানে কর্মরত আছেন চার লাখের বেশি প্রবাসী বাংলাদেশি। এদের অনেকেই ব্যবসা-বাণিজ্যসহ বিভিন্ন খাতে সুনামের সঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে চলেছেন। 
কাতারের ব্যবসা-বাণিজ্যে অন্যতম খাত হচ্ছে কনষ্ট্রাকশন ওয়ার্ক। কনষ্ট্রাকশনে, মেশন, কারপেন্টার, স্টিল ফিক্সার, মার্বেল টাইলসসহ বিভিন্ন নির্মাণ শ্রমিকের পেশায় কাজ করেন বেশিরভাগ বাংলাদেশিরা। কাতারে ব্যবসা-বাণিজ্য খাতেও এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশিরা। পুরুষদের পাশাপাশি বাংলাদেশি নারীরাও কাতারে ব্যবসায় যুক্ত হচ্ছেন। কাতারে ১০ হাজারের বেশি প্রবাসী বাংলাদেশি পরিবার নিয়ে বসবাসও করেন। 
কাতারে বাংলাদেশিদের মধ্যে একমাত্র কাতারি রেসিডেন্সধারী সহজসরল সাদা মনের মানুষ জালাল আহমেদ সিআইপি, তিনি দীর্ঘদিন কাতারে সুনামের সাথে ব্যবসা করে যাচ্ছেন। তিনি কাতার থেকে বাংলাদেশে সবচেয়ে বেশি রেমিট্যান্স প্রেরণ করে বাংলাদেশ সরকারের কাছ থেকে সিআইপিও নির্বাচিত হয়েছেন। 
বাংলাদেশের চাঁদপুর ফরিদগঞ্জ উপজেলার এ কৃতী সন্তান কাতারে স্থায়ী বসবাসের একমাত্র রেসিডেন্সি পাওয়া বাংলাদেশি ব্যক্তি, কাতার সরকার একমাত্র বাংলাদেশি হিসেবে জালাল আহমেদকে স্থায়ীভাবে বসবাসের অনুমতি দিয়েছে দেশটিতে।
কাতার প্রবাসী মোহাম্মদ জালাল আহমেদ সিআইপি, চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জ উপজেলা পৌর এলাকার মিয়াজি বাড়ীর হাজী আব্দুর রশিদ মিয়াজির বড় ছেলে, তিনি কাতারে গোল্ডেন মার্বেল কোম্পানির কর্ণধার। জালাল আহমেদ ২ ভাই ৫ বোনের মধ্যে প্রথম তিনি, তার এক বোন মাজেদা বেগম বর্তমানে ফরিদগঞ্জ উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানের দায়িত্বে আছেন। জালাল আহমেদ তিন মেয়ে আর এক পুত্রের জনক বর্তমানে সবাই সপরিবারে কাতারে থাকেন।
কঠোর পরিশ্রম আর মেধা দিয়ে কাতারে গড়ে তুলছেন গোল্ডেন মার্বেল কোম্পানি, গোল্ডেন মার্বেল কোম্পানি কাতারে মধ্যেই এক নাম্বার কোম্পানি।
নিজ জন্মস্থান চাঁদপুর জেলার ফরিদগঞ্জ থানার মানুষকেও কাতারে এনে স্বাবলম্বী করেছেন। পরিবারের অনেক সদস্য বর্তমানে কাতারে রয়েছেন তার। 
বর্তমানে বাংলাদেশ, ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা, মিশর, নেপালসহ অনেক দেশের শ্রমিক জালাল আহমেদের গোল্ডেন মার্বেল কোম্পানিতে কর্মরত রয়েছেন। জালাল আহমেদের বাংলাদেশের জন্মস্থান চাঁদপুর, খুলনা, ঢাকাসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন শহরে তার রয়েছে অনেকগুলো বাড়ি ও জায়গায় জমি।
কাতারস্থ বাংলাদেশ কমিউনিটিতে অতি পরিচিত মুখ জালাল আহমেদ সিআইপি। সফল এই ব্যবসায়ী সামাজিক সংগঠন কাতার চাঁদপুর সমিতি ও ফরিদগঞ্জ সমিতি প্রধান উপদেষ্টা। এছাড়া তিনি কাতার আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জ আসন থেকে নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছেন।
প্রায় ৩২ বছরের কাতারের প্রবাস জীবনে সুনামের সঙ্গে প্রতিষ্ঠিত এ ব্যবসায়ী সফলভাবে ব্যবসা করে যাচ্ছেন। কাতারে তার মালিকানাধীন চারটি মার্বেল পাথরের কারখানা রয়েছে, এছাড়া বাংলাদেশের খুলনার মোংলায় তার একটি মার্বেল ফ্যাক্টরি রয়েছে।
জালাল আহমেদ প্রতি বছর বাংলাদেশে ২০ থেকে ২৫ কোটি টাকা দান করেন পাশাপাশি এলাকায় নিজস্ব অর্থায়নে এতিমখানা, মসজিদ, মাদ্রাসা তৈরি করেছেন। অসহায় হত-দরিদ্র মানুষেরদের নিজস্ব অর্থায়নে ঘর নির্মাণ করে দিয়েছেন। এছাড়া দরিদ্র মানুষকে আর্থিকভাবে সহযোগিতা করে যাচ্ছেন, করোনার সময় ফরিদগঞ্জসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন জায়গায় মানুষকে সহযোগিতা করেছেন। করোনা কারণে চাকরি হারানো কাতার প্রবাসীদের পাশেও দাঁড়িয়েছেন তিনি।
জালাল আহমেদ বলেন, কাতারে বাংলাদেশিদের ব্যবসায়িক সাফল্যের জন্য বেশি করে পরিশ্রম করতে হবে, এখানে অর্থ অপচয়ের প্রচুর জায়গা রয়েছে, এসব জায়গায় থেকে নিজেদের দূরে রাখতে হবে, কাজকেই বেশি প্রাধান্য দিতে হবে। মনে রাখতে হবে, আমরা এখানে কাজ করতে এসেছি আর কাজ করে অর্থ উপার্জন করতে এসেছি। 
তিনি বলেন, নিজের যোগ্যতা আর মেধা দিয়ে এগিয়ে যেতে হবে, অর্থ উপার্জন করে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে হবে। নিজের ভাগ্য নিজে পরিবর্তন করে নিতে হবে, ভাগ্য পরিবর্তনের জন্য চেষ্টা থাকতে হবে নিজের ভিতর, কেউ আপনার ভাগ্য বদল করে দিতে পারবে না, সাময়িক কিছু সহযোগিতা পাবেন মানুষের কাছে। 
এই সফল প্রবাসী আরও বলেন, কাতারে বাংলাদেশিদের ছোট ছোট অনেক ব্যবসা প্রতিষ্ঠান রয়েছেন। আমার কাছে যারা আসে আমি সবাইকে সবসময় উৎসাহ দেই। বলি আরো বড় হতে হবে, কাতারে প্রচুর কাজ রয়েছে, কাজের জন্য সবসময় চেষ্টায় থাকতে হবে নিজের ভিতর।
জালাল আহমেদ বলেন, কাতারে চার লাখের বেশি প্রবাসী বাংলাদেশি রয়েছেন, কাতারে প্রবাসী বাংলাদেশিদের মধ্যে ঐক্যের অনেক অভাব রয়েছে। একজনের ভাল আরেকজন পছন্দ করে না।

করোনা ভাইরাস লাইভ

আরও সংবাদ

করোনা ভাইরাস লাইভ ›

লাইভ অনুষ্ঠান বুলেটিন ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
সর্বশেষ সংবাদ
অনুসদ্ধান
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop