ভাইরাল শাহেদের ব্যঙ্গাত্মক ভিডিও ভাইরাল

১৬-০৭-২০২০, ১৬:২৯

ভাইরাল

fb tw
শাহেদের ব্যঙ্গাত্মক ভিডিও ভাইরাল
করোনাভাইরাস পরীক্ষায় প্রতারণার অভিযোগে গ্রেফতার হওয়া শাহেদকে ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। গ্রেফতারের পর বুধবার (১৫ জুলাই) দিনগত রাতে সাতক্ষীরায় তার বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে মামলা হয়েছে। ইতোমধ্যে তার বিরুদ্ধে আরো ৫৯টি মামলা রয়েছে।
এদিকে শাহেদকে নিয়ে ব্যঙ্গাত্মক ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। সামাজিকমাধ্যম ফেসবুক ও ইউটিউবে এখন রিজেন্ট হাসপাতালের শাহেদ ও জেকেজি হাসপাতালে ডা. সাবরিনার ব্যঙ্গাত্মক ভিডিও’র ছড়াছড়ি।
বৃহস্পতিবার (১৬ জুলাই) ইঞ্জামাম উল হক শাওন নামে ফেসবুক আইডি থেকে শাহেদের একটি টকশো অনুষ্ঠানের ভিডিও ব্যঙ্গাত্মকভাবে প্রকাশ করা হয়েছে। ভিডিওতে শাহেদের প্রকৃত কথা (সাউন্ড) পরিবর্তন করে অন্য কোনো ব্যক্তির কথা জুড়ে দেয়া হয়েছে।
ভিডিতে দেখা যাচ্ছে, কোনো একটি টকশোর অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছেন শাহেদ। শাহেদের বাচন ভঙ্গিতে নকল কণ্ঠে বলা হচ্ছে, “আপনারা যখন দেখলেন হামিয়ানা ইনকাম করা শুরু করিচ্চি, সকলেই হামার পিছনে হাপনাগির লাগা লাইগলো। সকলেই হামাক খপ করা হাপনারা ধরি ফেলে দিলেন।”
ব্যঙ্গাত্মক ভিডিওতে শাহেদের বাচনভঙ্গির সঙ্গে মিলিয়ে নকল কণ্ঠে আরো বলা হচ্ছে, “আপনারা দেকিচ্চেন একটা লোক বিপদে পড়ি গেছে। তাও সাতক্ষীরা দিয়ে আমি ওই যখন বার্ডার পার হইয়া পলাই যাবার ধইরলাম আমাকে ধরি ফেললেন। এতগুলা লোক মিলা আমাক ধইরলো। তা হামাক কাছেতো করোনা আইসবার পারে। ওরা কি আদৌ স্যানিটাইজার মাখি ধইরবার আসছিল, আদৌ সাবার মাকছিল? কুতায় সেই সাবান? কুতায় সেই সেনিটাইজার?”
ভিডিওতে বলা হচ্ছে, “আমার হাসপাতালগুলোতো দেছেনই আপনার সিল কইরা। তার পরে হাপনাগো এতই হিংসা যে, হামি যে শউরের সাথে এক কোটি টাকা নিয়ে প্রতারণা করছি, সেডাও আপনাগেরে পত্রিকাত তুলে দেয়া লাগলো। তার পরে আবার আমার তিন বউ লিয়ে কতা কইচ্চেন। ধরা না পড়লিতো আরো বিয়ে কইল্লাম।”
এদিকে গ্রেফতারের পরেও প্রতাপ কমেনি প্রতারক শাহেদ করিমের। র‍্যাব অফিসে বসে র‌্যাব কর্মকর্তাদেরই তিনি হুমকি দিয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।  র‌্যাব কর্মকর্তাদের হুমকি দিয়ে তিনি বললেন, ‘আমার সঙ্গে আপনাদের আবারও দেখা হবে। হয়তো ছয় মাস পর দেখা হয়ে যেতে পারে। আপনাদের প্রমোশন পোস্টিং যাই হোক না কেন, আমি কিন্তু দেখা করব। কথাটা মনে রাখবেন।’
সংশ্লিষ্ট সূত্র এ তথ্য দিয়ে বলছে, ঢাকার র‌্যাব কার্যালয়ে প্রতারক শাহেদকে নিয়ে আসার পর কর্মকর্তারা তাকে জেরা করছিলেন। ঠিক তখনই সবাইকে অবাক করে দিয়ে র‌্যাব কর্মকর্তাদের উদ্দেশে এমন ঔদ্ধত্যপূর্ণ কথা বলেন।  
এর আগে করোনা পরীক্ষার ভুয়া রিপোর্ট দেয়ার অভিযোগে বুধবার (১৫ জুলাই) ভোরে রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান শাহেদ করিমকে সাতক্ষীরা থেকে গ্রেফতার করে র‌্যাব। এসময় তার কাছ থেকে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।
ভোর ৫টা ১০ মিনিটে সাতক্ষীরার সীমান্তের দেবহাটা থানার সাকড় বাজারের পাশে অবস্থিত লবঙ্গপতি এলাকা থেকে বোরকা পরে নৌকায় পালিয়ে থাকা অবস্থায় তাকে গ্রেফতার করা হয়। চুলে কালো রং লাগিয়ে, গোফ কেটে নিজেকে পাল্টে ফেলেন শাহেদ। বোরকা পরে একটি নৌকায় করে ইছামতী নদী দিয়ে পালাচ্ছিলেন।
গ্রেফতারের পর সকাল ৮টা ১০ মিনিটে সাতক্ষীরা স্টেডিয়াম থেকে হেলিকপ্টারে করে শাহেদকে নিয়ে ঢাকার উদ্দেশে রওয়ানা দেয় র‌্যাবের দলটি।
শাহেদ করিম ওরফে মো.শাহেদের ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। একই সঙ্গে রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান শাহেদের প্রতারণার অন্যতম সহযোগী গ্রুপটির এমডি মাসুদ পারভেজকেও ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করা হয়। এছাড়া শাহেদের প্রধান সহযোগী তরিকুলের ৭ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।
বৃহস্পতিবার (১৬ জুলাই) বেলা ১১টায় ঢাকা মুখ্য মহানগর হাকিম (সিএমএম) মোহাম্মদ জসিম এ রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর করেন। এর কিছুক্ষণ আগে ডিবি কার্যালয় থেকে শাহেদকে আদালতে হাজির করে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়। শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম মোহাম্মদ জসিম এ আদেশ দেন।

করোনা ভাইরাস লাইভ

আরও সংবাদ

করোনা ভাইরাস লাইভ ›

লাইভ অনুষ্ঠান বুলেটিন ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
সর্বশেষ সংবাদ
অনুসদ্ধান
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop