মহানগর সময় করোনা সংক্রমণে ৪ নম্বরে কক্সবাজার

০৬-০৬-২০২০, ১৯:১০

সুজাউদ্দিন রুবেল

fb tw
করোনা সংক্রমণে ৪ নম্বরে কক্সবাজার
দেশে করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির সংখ্যা যেমন দিন দিন বাড়ছে, তেমনি মৃত্যুর সংখ্যাও বেড়ে চলেছে। সেক্ষেত্রে দেশে করোনা সংক্রমণের হার ও সংখ্যার দিক দিয়ে পর্যটন নগরী কক্সবাজার এখন ৪ নম্বরে অবস্থান করছে।
শনিবার (৬ জুন) বিকেলে এক ভিডিও বার্তায় কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
জেলা প্রশাসনের দেয়া তথ্য মতে, গত ৬৩ দিনে মোট ৭ হাজার ৩৫১ জন সন্দেহভাজন রোগীর করোনা ভাইরাস টেস্ট করা হয় কক্সবাজার মেডিকেল কলেজে স্থাপিত ল্যাবে। এর মধ্যে ৯৫৮ জনের রিপোর্ট করোনা পজিটিভ পাওয়া গেছে। এতে কক্সবাজার জেলার রয়েছে ৮৭২ জন। জেলায় আক্রান্তদের মধ্যে কক্সবাজার সদর উপজেলায় ৩৬৪ জন শনাক্ত হয়েছে। এদের মধ্যে ২৭৫ জন কক্সবাজার পৌর এলাকার বাসিন্দা।
এছাড়া মহেশখালীতে ৩৪ জন, টেকনাফে ৪১ জন, উখিয়ায় ১১০ জন, রামু ৫৩ জন, চকরিয়ায় ১৮৯ জন, কুতুবদিয়ায় ৩ জন এবং পেকুয়ায় ৪৭ জন রয়েছে। এর সাথে রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ২৯ জন রোহিঙ্গা।
কক্সবাজার মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ল্যাবে করোনা আক্রান্ত শনাক্ত হওয়া ৯৫৮ জনের মধ্যে অন্যান্যরা কক্সবাজার জেলার নিকটবর্তী বান্দরবান জেলাসহ চট্টগ্রামের চাঁদগাঁও, সীতাকুণ্ড, লোহাগাড়া ও সাতকানিয়ার বাসিন্দা।
কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন বলেন, করোনা সংক্রমণের হার ও সংখ্যা বিবেচনায় কক্সবাজার জেলা এই মুহূর্তে ৪ (চার) নম্বরে রয়েছে। কক্সবাজার জেলায় ইতিমধ্যে ৮৭২ জন করোনা পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হয়েছে। তারমধ্যে ২৭৫ জন হচ্ছে কক্সবাজার পৌরসভার। জেলায় করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে ১৯ জন, এরমধ্যে ১৩ জন হচ্ছে কক্সবাজার পৌরসভার বাসিন্দা।
জেলা প্রশাসক আরও বলেন, সবকিছু বিবেচনা করে কক্সবাজার পৌরসভা এখন অতি মাত্রায় ঝুঁকিতে রয়েছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে যে ম্যাপিং করা হয়েছে; সেখানে কক্সবাজার পৌরসভা রেড জোনের মধ্যে পড়ে। সেই কারণে কক্সবাজার জেলা করোনা প্রতিরোধ সংক্রান্ত কমিটি, জেলার দায়িত্বপ্রাপ্ত সিনিয়র সচিব, এমপি, গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গসহ সবাইকে নিয়ে সবার সাথে কথা বলে এই রেড জোন ঘোষণা করা হয়েছে।
আগামী দু’সপ্তাহ শুধুমাত্র জরুরি প্রয়োজন যানবাহন সীমিত আকার চলাচল করবে। অন্যসব যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে। এটার একমাত্র উদ্দেশ্যে হল করোনা সংক্রমণের হারটা যাতে কমে আসে। সেই ব্যবস্থায় নেয়া হয়েছে বলে জানান তিনি।
নাগরিকদের উদ্দেশ্য করে জেলা প্রশাসক কামাল হোসেন বলেন, ‘সম্মানিত নাগরিকদের অনুরোধ জানাচ্ছি, রেড জোন ঘোষণা করে আগামী দু’সপ্তাহের জন্য লকডাউন করে প্রশাসন যে নির্দেশনাগুলো দিয়েছে সেগুলো যাতে মেনে চলে। কক্সবাজারে করোনা সংক্রমণের দ্রুত যে হার সেটা যাতে কমিয়ে আনার জন্য সকলেই প্রশাসনকে সহযোগিতা করে।

করোনা ভাইরাস লাইভ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
সর্বশেষ সংবাদ

করোনা ভাইরাস লাইভ

আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop