মহানগর সময় মাদরাসার অফিস সহকারীকে লাঞ্ছিত, ইউপি চেয়ারম্যানসহ ৩ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ

০৫-০৬-২০২০, ১৪:২৭

ফিরদাউস সোহাগ

fb tw
মাদরাসার অফিস সহকারীকে লাঞ্ছিত, ইউপি চেয়ারম্যানসহ ৩ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ
বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার দরিচর খাজুরিয়া মাদরাসার অফিস সহকারীর গলায় জুতার মালা পরিয়ে ভিডিও করে ভাইরালের ঘটনায় দায়ের করা মামলার প্রধান আসামি ইউনিয়ন চেয়ারম্যানসহ ৩ জনকে বরিশালে আনা হয়েছে।
শুক্রবার সকাল সাড়ে ১১টায় প্রধান আসামি দরিচর খাজুরিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. মোস্তফা রাঢ়ি, সাবেক মেম্বার আব্দুস সাত্তার ও অপর আসামি বজলুর রহমানকে বরিশাল জেলা পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে আনা হয়। সেখানে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।
অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. সাইমুল হক বলেন, জিজ্ঞাসাবাদ শেষে আজই এ তিনজনকে আদালতে সোপর্দ করা হবে। এ মামলায় মোট আসামি নাম উল্লেখ ৯ জনসহ ১১ জন। মামলার ৮ ঘণ্টার মধ্যে প্রধান আসামিসহ ৩ জনকে পুলিশ গ্রেফতার করে। বাকিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলে জানিয়েছেন এ পুলিশ কর্মকর্তা।
গত ৩ জুন বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার দরিচর খাজুরিয়া ইউনিয়ন পরিষদের কার্যালয়ের মধ্যে সালিশ বিচারের নামে মো. শহিদুল ইসলামকে জুতার মালা পরিয়ে আটকে রেখে নির্যাতন করা হয়। এ দৃশ্য নিজেরাই ভিডিও করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দিলে তা ভাইরাল হয়।
এরপর ৪ জুন সকালে শহিদুল নিজেই বাদী হয়ে মেহেন্দিগঞ্জ থানায় মামলা করেন। দরিচর মাদরাসার ষষ্ঠ শ্রেণির এক শিক্ষার্থীর উপবৃত্তির টাকা শহিদুল ইসলামের মোবাইল ফোনে চলে যায়। এ বিষয়ে তিনি কর্তৃপক্ষের কাছে ভুল স্বীকার করে ক্ষমা প্রার্থনাও করেন, তারপরও চেয়ারম্যান এ কাণ্ড ঘটান।

করোনা ভাইরাস লাইভ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
সর্বশেষ সংবাদ

করোনা ভাইরাস লাইভ

আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop