রসুই ঘর ঈদের দিনে প্রিয়জনের মন ভরাতে পাতে কী কী দেবেন

২৩-০৫-২০২০, ২৩:৪০

রসুই ঘর ডেস্ক

fb tw
ঈদের দিনে প্রিয়জনের মন ভরাতে পাতে কী কী দেবেন
বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসের মধ্যেই এ বছর মুসলিমরা একমাস সিয়াম সাধনা পালন করছেন। আগামি সোমবার (২৫ মে) অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে পবিত্র ঈদুল-ফিতর। ঈদুল ফিতরে নতুন জামা কাপড় যেমন চাই, তেমনি ঘরে ঘরে থাকে মজাদার সব আয়োজন। কিন্তু এবার করোনার থাবায় সব আয়োজনই যেনো ফিকে হয়ে গেছে। তবুও এবার বাড়ি বাড়ি দাওয়াতের হিড়িক না থাকলেও ঘরে ঘরে থাকবে বিভিন্ন আয়োজন। ঘরোয়া কিছু খাবারের আয়োজন তুলে ধরা হল :
সেমাই মিঠা টুকরা :-
উপকরণ : সেদ্ধ সেমাই ২ কাপ, ডিমের সাদা অংশ ১ টি, কর্নফ্লাওয়ারর ১-২ টেবিল চামচ, তরল দুধ ১ লিটার, এলাচ ২/৩ টি, দারচিনি ১টি, তেল ও ঘি (ভাজার জন্য), চিনি সাদ মত, ভানিলা ফ্লেভার সামান্য কিশমিশ ও বাদাম কুচি সাজানোর জন্য।
প্রস্তুত প্রণালি : একটি পাত্রে দুধ, এলাচ, দারচিনি, চিনি, ভ্যানিলা ফ্লেভার দিয়ে একটু ঘন করে অল্প আচে ফুটতে দিতে হবে। সেদ্ধ সেমাই এর মধ্যে ডিম, কর্নফ্লাওয়ার আর ১ টেবিল চামচ চিনি দিয়ে একটু মেখে গোল গোল চ্যাপটা করে বড়া বানিয়ে নিতে হবে। এবার প্যানে তেল/ঘি বা ঘি তেলের মিশ্রন গরম করে অল্প আচে বড়া গুলো সোনালী করে ভেজে নিয়ে ফুটন্ত দুধে ছেড়ে দিতে হবে। কিছুক্ষন জাল করে নামিয়ে বাদাম কিশমিশ দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করতে হবে ।
চিকেন কাটলেট :-
উপকরণ : মুরগীর মাংসের কিমা – ২০০ গ্রাম, কর্নফ্লাওয়ার – ২ চা চামচ, আদা বাটা – ১ চা চামচ, রসুন বাটা – ১ চা চামচ, পেঁয়াজ মিহি কুচি – ২ টেবিল চামচ, কাঁচা মরিচ কুচি – ২-৩ টি, গারলিক সস – ১ টেবিল চামচ, টমেটো সস – ১ টেবিল চামচ, লবণ – স্বাদ মতো, টেস্টিং সল্ট – আধা চা চামচ, সাদা গোল মরিচের গুঁড়া – ১ চা চামচ, ধনে পাতা কুচি – ১ টেবিল চামচ, ডিম – ২ টি, ব্রেড ক্রাম – ২ কাপ ও তেল – ভাজার জন্য।
প্রস্তুত প্রণালি : একটি বাটিতে মুরগীর মাংসের কিমার সাথে তেল, ডিম ও ব্রেড ক্রাম বাদে বাকি সব উপকরণ দিয়ে খুব ভাল করে মিশিয়ে নিন। এবার কাটলেটের আকারে গড়ে নিন। ও হালকা ময়দা মাখিয়ে ফ্রিজে রেখে সেট হতে দিন। ২ টি ডিম একটু লবণ দিয়ে ফেটিয়ে নিন। এবার ফেটানো ডিমে সাবধাণে কাটলেটগুলো চুবিয়ে ব্রেড ক্রামে জড়িয়ে আবারও কিছু সময় ফ্রিজে সেট হতে দিন। কড়াইতে তেল গরম করে কাকলেট হালকা আঁচে সোনালি করে ভেজে নিন। ভাজা হয়ে গেলে কিচেন টিস্যুর উপর নামিয়ে নিন, এতে বাড়তি তেল টিস্যু টেনে নেবে। এবার পছন্দ মতো সস বা সালাদের সাথে গরম গরম পরিবেশন করুন কলকাতা স্টাইল মুচমুচে চিকেন কাকলেট ।
চিকেন টিক্কা বিরিয়ানী :-
উপকরণ :  মুরগি ২৫০ গ্রাম (হাড় ছাড়া), তন্দুরি মশলা দিয়ে মাখানো বেক/ গ্রিল/,  অল্প তেলে ভেজে নেয়া ভাত ২ ১/২ কাপ পোলাউ/, বাসমতি চালের, তেল ৩ টেবিল চামচ, আস্ত জিরা ১/২ চা চামচ, পেয়াজ কুচি ১ কাপ, আদা বাটা ২ চা চামচ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, মরিচ গুড়া ১ চা চামচ, হলুদ গুড়া ১/২ চা চামচ, জিরা বাটা ১ চা চামচ, ধনিয়া বাটা ১/২ চা চামচ, গরম মশলা গুড়া ১ চা চামচ, টমেটো ১ টি মাঝারি আকারের ব্লেন্ড করে নেয়া, ধনিয়া পাতা কুচি ১ কাপ, কাচা মরিচ ৪/৫ টি, লবণ পরিমাণ মত
প্রস্তুত প্রণালী : প্যানে তেল দিন তেল গরম হলে আস্ত জিরা দিন পেয়াজ দিন, একটু নরম হয়ে আসলে একে একে সব মশলা দিয়ে দিন কষাতে থাকুন, এবার টমেটো দিন লবন দিন নেড়ে সামান্য পানি দিয়ে ঢেকে রাখুন ৪/৫ মিনিট পর অর্ধেক ধনিয়া পাতা দিন এবার আগে থেকে রান্না করা ভাত দিন ভালো করে করে মিক্স করে নিন। কাচা মরিচ ও বাকি ধনিয়া পাতা উপরে দিয়ে ১৫ মিনিট অল্প আছে দমে রাখুন। সালাদ/ রায়তার সাথে গরম গরম পরিবেশন করুন।
বাদাম পোলাও :-
উপকরণ : বাসমতি চাল ৫০০ গ্রাম, তেল আধা কাপ, ঘি ২ টেবিল চামচ, লবণ ও চিনি স্বাদমতো, পেঁয়াজ কুচি আধা কাপ, আদা বাটা আধা চা চামচ, বাদাম বাটা ২ টেবিল চামচ, জাফরান পরিমাণমতো, ঘন দুধ ১ কাপ, কিশমিশ, কাঠবাদাম, কাজুবাদাম, আনারদানা।
প্রস্তুত প্রণালী : ঘি ও তেল গরম করে এতে বাদাম ও কিশমিশ ভেজে তুলে রাখতে হবে। বাসমতি চাল ধুয়ে ৩০ মিনিট ভিজিয়ে রেখে ৮০ ভাগ রান্না করতে হবে। তেল গরম করে লবণ, পেঁয়াজকুচি, আদাবাটা, বাদম বাটা দিয়ে নেড়ে রান্না ভাত, জাফরান, ঘি, ঘন দুধ ও পরিমাণমতো পানি দিয়ে ঢেকে পোলাও দমে রান্না করতে হবে। পরিবেশনের সময় উপরে ভাজা বাদাম ও কিশমিশ এবং আনারদানা দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করতে হবে।
মাল্টা সাগুর পায়েস :-
উপকরণ : মাল্টার রস ২ কাপ, চিনি পরিমাণমতো, গুঁড়া দুধ ১ কাপ, সাগু ১ কাপ, বাদাম পরিমাণমতো, ফ্রেশক্রিম ১ কাপ, স্ট্রবেরি জেল্লো ২ টেবিল চামচ, কর্নফ্লাওয়ার ১ চা চামচ।
প্রস্তুত প্রণালী : মাল্টার রস চিনি দিয়ে জ্বাল দিতে হবে, এর মধ্য সিদ্ধ সাগু দিয়ে ভালোভাবে নাড়তে হবে। এতে গুঁড়া দুধ, বাদাম, ফ্রেশক্রিম দিয়ে ভালোভাবে নেড়ে ঘন করে রান্না করতে হবে। পাত্রে ঢেলে উপরে ক্রিম, বাদাম ও জেল্লো দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করতে হবে।
বিফ মানচুরিয়ান :-
উপকরণ : গরুর মাংস ৫০০ গ্রাম (হাড় ছাড়া), সবুজ ক্যাপসিকাম, পেঁয়াজ কিউব, টমেটো পিউরি, কাঁচামরিচ, লাল মরিচ গুঁড়া, কর্ন ফ্লাওয়ার, ময়দা, চালের গুঁড়া, সয়াসস, আদা-রসুন বাটা, লবণ, তেল পরিমাণমতো, চিনি স্বাদমতো।
প্রস্তুত প্রণালী : মাংস পাতলা করে কেটে তাতে মরিচ গুঁড়া, আদা ও রসুন বাটা, লবণ, ময়দা, চালের গুঁড়া, কর্ন ফ্লাওয়ার দিয়ে মেখে ১০ মিনিট রেখে তেলে ভেজে নিতে হবে। এবার তেলে মোটা পেঁয়াজ কিউব, ক্যাপাসিকাম কিউব, দিয়ে তাতে টমেটো পিউরি, লাল মরিচ, কাঁচামরিচ, সয়াসস ও কর্নফ্লাওয়ার পানিতে গুলে এর মধ্য দিয়ে নেড়ে মাংস দিয়ে ১০ মিনিট রেখে নামিয়ে নিতে হবে।
খাসির শাহী রেজালা :-
উপকরণ : খাসির মাংস ১ কেজি, টক দই ১ কাপ, ঘি অথবা তেল পরিমাণ মতো, লবণ পরিমাণ মতো, পেঁয়াজ বেরেস্তা ১ কাপ, পোস্ত বাটা ২ টেবিল চামচ, মিষ্টি দই ১ কাপ, আদা ও রসুন বাটা ২ টেবিল চামচ, ধনে গুড়া ১ টেবিল চামচ, মরিচ গুড়া ১ টেবিল চামচ, হলুদ গুড়া ১ টেবিল চামচ, সাদা এলাচ ৬টি, লবঙ্গ ৮টি, জয়ত্রী গুড়া অর্ধেক চা-চামচ, গোল মরিচ-৬/৮টি, দারচিনি ৫ টুকরা, জয়ফল অর্ধেক চা-চামচ, কাজু বাদাম ও পেস্তা বাদাম ৪ টেবিল চামচ, দুধ ১ কাপ, কিসমিস-১০/১২টি এবং আলুবোখারা-৬টি।
প্রস্তুত প্রণালী : প্রথমে মিষ্টি দই এর সাথে কাজু বাদাম ও পেস্তা বাদাম দিয়ে ব্লেন্ডারে খুব ভালোভাবে ব্লেন্ড করে পেস্ট করে নিতে হবে। এরপর একটি পাত্রে মাংস নিয়ে তাতে একে একে টক দই, লবণ, মরিচ গুড়া, হলুদ গুড়া, এলাচ, দারুচিনি, গোলমরিচ, পেঁয়াজ বেরেস্তা, আদা রসুন বাটা, পোস্ত বাটা, তেজপাতা, লবঙ্গ, জয়ত্রী, এবং জয়ফল গুড়া দিয়ে খুব ভালোভাবে হাত দিয়ে মাখিয়ে মাখিয়ে ম্যারিনেট করতে হবে। এবার ঢাকনা দিয়ে ঢেকে রাখতে হবে ৩০ মিনিট। পরে চুলায় পাত্র বসিয়ে পরিমাণ মতো তেল বা ঘি দিয়ে হালকা গরম হলে এতে ম্যারিনেট করে রাখা মাংস ঢেলে দিতে হবে। মাঝারি আঁচে রান্না করতে হবে এবং অনবরত নাড়তে হবে। কিছুক্ষণ পর ঢেকে দিতে হবে এবং মাঝেমাঝে ঢাকনা খুলে নেড়ে দিতে হবে। এভাবে প্রায় ২০ মিনিট রান্না করতে হবে। এই অবস্থায় ঢাকনা খুলে দেখা যাবে তেল ভেসে উঠেছে। এখন ১ কাপ দুধ দিতে হবে। আলাদাভাবে কোন পানি দেওয়ার প্রয়োজন নেই। ধীরে ধীরে মাংস সেদ্ধ হয়ে আসবে এবং ঝোল বেশ ঘন হয়ে আসবে। এরপর ৬টি আলুবোখারা দিয়ে দিতে হবে। খুব অল্প আঁচে রান্না করতে হবে। এই পর্যায়ে দই এবং বাদামের পেস্ট দিয়ে দিতে হবে। আরও ১০ মিনিট রান্নার পর দুই চামচ চিনি এবং কিসমিস দিয়ে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে দিতে হবে। চুলা বন্ধ করে কিছুসময় রেখে দিতে হবে। এরপর পছন্দমত সাজিয়ে ঈদে পরিবার-পরিজন-অতিথি আপ্যায়নে পরিবেশন করুন মজাদার খাসির শাহী রেজালা।
মিষ্টি কুমড়ার মিঠুরি :-
উপকরণ : সিদ্ধ মিষ্টি কুমড়া ১ কাপ, চিনি পরিমাণমতো, চালের গুঁড়া ৩ টেবিল চামচ, সুজি ৪ টেবিল চামচ, ডিম ১টা, বেকিং পাউডার ১ চা চামচ, ঘন দুধের খিরসা ১ কেজি, বাদাম, চেরি, নারিকেল সাজানোর জন্য, তেল ভাজার জন্য পরিমাণমতো।
প্রস্তুত প্রণালী : সিদ্ধ মিষ্টি কুমড়ার সঙ্গে চিনি, চালের গুঁড়া, ডিম, সুজি বেকিং পাউডার দিয়ে ভালোভাবে মিশিয়ে গোল করে ডুবো তেলে ভেজে নিতে হবে। দুধ, চিনি, এলাচ ও দারুচিনি দিয়ে জ্বাল করে ঘন দুধের মধ্য ভাজা পিঠাগুলো দিয়ে উপরে নারিকেল কোড়া, বাদাম ও চেরিকুচি দিয়ে ৩ ঘণ্টা রেখে পরিবেশন করতে হবে।

করোনা ভাইরাস লাইভ

আরও সংবাদ

করোনা ভাইরাস লাইভ ›

লাইভ অনুষ্ঠান বুলেটিন ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
সর্বশেষ সংবাদ
অনুসদ্ধান
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop