খেলার সময় আগস্টে মাঠে নামছে ইংল্যান্ড-পাকিস্তান

১৯-০৫-২০২০, ১৩:৪৮

খেলার সময় ডেস্ক

fb tw
আগস্টে মাঠে নামছে ইংল্যান্ড-পাকিস্তান
আগস্টে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট ও টি-২০ খেলার ব্যাপারে নীতিগত সিদ্ধান্ত নিয়েছে পাকিস্তান। দর্শকশুন্য মাঠ এবং স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিতের প্রতিশ্রুতি দেয়ায় ইংল্যান্ডে যেতে রাজি হয়েছে বলে জানিয়েছেন পিসিবির সিইও ওয়াসিম খান। তবে ক্রিকেটারদের জোর করা হবে না বলেও জানিয়েছেন তিনি।
এদিকে লকডাউন শিথিল না হলেও খেলাধুলার ওপর থেকে বিধিনিষেধ তুলে নিয়েছে ভারত সরকার। স্বাস্থ্যবিধি মেনে চাইলেই যেকোন টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে পারবে বলে জানানো হয়েছে এক বিজ্ঞপ্তিতে।
করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিন তো দূরে থাক, এখনো তার সঙ্গে লড়াইয়ের কোনো অস্ত্রই আবিষ্কার করা সম্ভব হয়নি মানুষের পক্ষে। দিন যত যাচ্ছে, অবস্থা ততই খারাপ হচ্ছে। উন্নতির কোনো লক্ষণই দেখা যাচ্ছে না বিশ্বের কোনো দেশে।
তারপরও জীবন তো আর থেমে থাকবে না। ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে অনেকটা ঢাল-তলোয়ার ছাড়াই জায়গায় জায়গায় রাস্তায় নেমে এসেছে সাধারণ মানুষ। জোর করেই স্বাভাবিক করে তোলার চেষ্টা হচ্ছে নিত্য দিনের জীবনকে। বসে নেই, ক্রীড়া বিশ্বের মানুষগুলোও। ইউরোপের বিভিন্ন দেশে ফুটবল মাঠে ফেরা শুরু করায়, এবার নতুন করে পালে হাওয়া লেগেছে ক্রিকেটের।
অর্থনৈতিক ক্ষতির ধোয়া তুলে, যেকোন মূল্যে দ্রুত মাঠে নেমে পড়তে চাচ্ছে বিভিন্ন দেশের ক্রিকেট বোর্ড। যার মাঝে, সবচেয়ে বড় নামটা হচ্ছে ইংল্যান্ড এবং ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড। শর্ত সাপেক্ষে আগামী মাস থেকে অনুশীলনে নামার কথা রয়েছে ইংলিশ ক্রিকেটারদের। এবার, বিভিন্ন দলগুলোকে খেলতে আসার আমন্ত্রণ জানানোর আনুষ্ঠানিকতা শুরু করেছে তারা।
ওয়েস্টইন্ডিজের পর, এবার সেই প্রস্তাবে নীতিগতভাবে সম্মত হয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। বিষয়টি সংবাদ মাধ্যমে নিশ্চিত করেছেন সিইও ওয়াসিম খান। আসছে আগস্টে তিন টেস্ট ও তিন টি-টোয়েন্টি খেলতে ইংল্যান্ড যেতে রাজি তারা। এ নিয়ে চুক্তিও সই করেছে দুই বোর্ড।
এ মুহূর্তে করোনা আক্রান্তের হিসেব কষলে, সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশের একটি ইংল্যান্ড। সে দেশে এতো দ্রুত ক্রিকেট খেলতে যাওয়াটা হঠকারি হবে কি'না স্বাভাবিক ভাবেই এমন প্রশ্ন ছিল ওয়াসিম খানের দিকে। তবে ইসিবির পক্ষ থেকে সুরক্ষিত পরিবেশে সিরিজটি আয়োজনের প্রতিশ্রুতি দেয়ায়, রাজি হওয়ার কথা জানান তিনি।
মাঠে ক্রিকেট গড়ালেও, দর্শকদের জন্য গ্যালারি খুলছেনা বলেই নিশ্চিত করেছে ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড। এমনকি, দুদলের ক্রিকেটারদের থাকতে হবে বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিনেও। যাতায়াত এবং অনুশীলনের জণ্যও থাকবে বিশেষ ব্যবস্থা।
এদিকে এতো আয়োজন যাদের জন্য, সেই ক্রিকেটারদের সঙ্গেও কথা বলা হবে বলে জানিয়েছেন ওয়াসিম খান। আগামী সপ্তাহে টেস্ট ও ওয়ানডে দলের অধিনায়কের সঙ্গে বসবে পাকিস্তানের প্রভাবশালী কর্মকর্তারা। তবে, যদি কোন ক্রিকেটার সিরিজে যেতে রাজি না হয়, তাকে জোর করা হবে না বলেও নিশ্চিত করেছেন সিইও।
পাকিস্তানকে দেখেই কি না মাঠে খেলা ফেরানোর উদ্যোগ নিয়েছে ভারত। দেশের সার্বিক লক ডাউন ব্যবস্থা শিথিল না হলেও, ক্রীড়া ইভেন্টের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিয়েছে ভারত সরকার। যদিও, যাই আয়োজন করা হোক না কেন, মাঠে এসে তা দেখার সুযোগ থাকছেনা দর্শকদের জন্য। কারণ, জনসমাগমের ওপর বিধিনিষেধ আগের মতোই থাকছে ভারতে।
এদিকে সরকারের এ সিদ্ধান্তকে সাধুবাদ জানিয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড, বিসিসিআই। তবে, এখনই কোন টুর্নামেন্ট আয়োজনের দিকে যাবে না বলেই জানিয়েছে তারা। মূলত ঘরোয়া এবং আন্তর্জাতিক বিমান যোগাযোগ বন্ধ থাকাতেই এ সিদ্ধান্ত নিতে হচ্ছে তাদের। পাশাপাশি সব রাজ্যে লক ডাউন অবস্থাও এক নয় ভারতে।

করোনা ভাইরাস লাইভ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
এক্সক্লুসিভ লাইভ
বিপিএল ২০২০

করোনা ভাইরাস লাইভ

আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop