খেলার সময় করোনা: অনির্দিষ্টকাল বন্ধ চ্যাম্পিয়ন্স লিগ-উয়েফা ও লা লিগা

২৪-০৩-২০২০, ১৩:৩২

খেলার সময় ডেস্ক

fb tw
করোনা: অনির্দিষ্টকাল বন্ধ চ্যাম্পিয়ন্স লিগ-উয়েফা ও লা লিগা
করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বাড়তে থাকায় অনির্দিষ্টকালের জন্য চ্যাম্পিয়ন্স লিগ এবং ইউরোপা লিগের খেলাগুলো বন্ধ ঘোষণা করেছে উয়েফা। একই সিদ্ধান্ত নিয়েছে লা লিগা কর্তৃপক্ষও। এদিকে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সঙ্গে যৌথভাবে করোনা আক্রমণ ঠেকাতে কাজ করার ঘোষণা দিয়েছে ফিফা।
বন্ধ হয়ে গেলো ইউসিএল এবং ইউরোপা লিগ। চমকে যাওয়ার মতো কোন খবর অবশ্য এটা নয়। গত কিছুদিন ধরে যেভাবে চলছিলো, তা'তে সিদ্ধান্তটা অবধারিত। বাকি ছিলো, কেবলই আনুষ্ঠানিকতা। সেই দায়িত্বটাই শুধু পালন করলো উয়েফা।
ইউসিএলে নারী-পুরুষ দুটি ফাইনাল এবং ইউরোপা লিগের একটি মিলিয়ে মোট তিনটি ফাইনাল ম্যাচ হওয়ার কথা ছিল আসছে মে'তে। উয়েফার বৈঠক শেষে আপাতত সব ম্যাচ স্থগিত ঘোষণা করলো কর্তৃপক্ষ। দেশগুলোর সঙ্গে আলোচনা শেষে নতুন কোন দিন-তারিখ নির্ধারণ করা হবে। যদিও, আপাতত সেসব নিয়ে ভাবছেন তারা।
একই পথে হেঁটেছে লা লিগাও। স্থগিত করা হয়েছে স্পেনের সব ফুটবল টুর্নামেন্ট। ৩ এপ্রিল খেলা শুরু হওয়ার কথা থাকলেও কোভিড-১৯ এর সংক্রমণ বাড়তে থাকায় অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ করে দেয়া হয়েছে সকল কার্যক্রম। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, পরিস্থিতি স্বাস্থ্যের জন্য ঝুঁকিমুক্ত হলে, খেলা আবারো শুরু হবে।
এদিকে, দেশে দেশে লিগ এবং মেজর টুর্নামেন্টগুলো বন্ধ হয়ে যাওয়ায়, বড় আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়তে যাচ্ছে ফুটবল বিশ্ব। যে কোন মূল্যে এখন এ ক্ষতি উৎরানোর উপায় খুঁজছে ফিফা। সংশ্লিষ্ট ক্লাব এবং ফেডারেশনগুলোর সঙ্গে কথা বলে সীমিত আকারে লিগের ম্যাচগুলো আয়োজন করার কথাও ভাবছে তারা।
মানবতার এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে ব্রাজিল। ২০১১ কোপা লিবার্তাদোরেস ফাইনাল ম্যাচের ভেন্যু এস্তাদিও দ্য পোকেম্বুকে হাসপাতাল হিসেবে ব্যবহারের অনুমতি দিয়েছে তারা। করোনা আক্রান্ত রোগিদের জন্য স্বাভাবিক হাসপাতলগুলোতে স্থান সংকুলান না হওয়ায় এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা। ১৯৫০ সালে নির্মিত স্টেডিয়ামটিতে ৫ দিনের মধ্যে ২০০ শয্যার ব্যবস্থা করে দেয়ার কথাও জানিয়েছে স্টেডিয়াম কর্তৃপক্ষ।
বিশ্বজুড়ে এখন পর্যন্ত ১৬ হাজার মানুষের অকাল মৃত্যু হয়েছে করোনা ভাইরাস সংক্রমণে। এই মহামারির বিরুদ্ধে লড়তে এবং মানব সভ্যতাকে রক্ষা করতে এক হয়ে সবাইকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন ফিফা সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনো। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সঙ্গে যৌথভাবে কাজ করার ঘোষণাও দিয়েছে ফুটবলের সর্বোচ্চ সংস্থা।
এদিকে, হোম কোয়ারেন্টাইনে থেকে নিজের সতীর্থদের উদ্দেশ্যে বার্তা দিয়েছেন স্পেন ফুটবল দলের অধিনায়ক সার্জিও রামোস। আশাহত না হয়ে, আবারো ড্রেসিংরুমে ফেরার আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন তিনি।
একইভাবে নিজেদের সমর্থকদের জন্য সচেতনতামূলক ভিডিও বার্তা দিয়েছেন ক্রোয়েশিয়ান ফুটবলাররা। সবাইকে এক হয়ে এ মহামারির বিরুদ্ধে লড়াই করার আহ্বান জানান তারা। এসময়, সবাইকে ঘরে থেকে নিজের এবং পরিবারের দেখভালের পরামর্শ দেন মদ্রিচ, পেরিসিচরা। প্রয়োজন না হলে কাউকে ঘরের বাইরে না আসতেও বলেন তারা।

করোনা ভাইরাস লাইভ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
এক্সক্লুসিভ লাইভ
বিপিএল ২০২০

করোনা ভাইরাস লাইভ

আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop