আন্তর্জাতিক সময় রণক্ষেত্র নয়াদিল্লি

২৬-০২-২০২০, ০১:৫৪

সময় সংবাদ

fb tw
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ভারত সফরের মধ্যেই রণক্ষেত্র রাজধানী নয়াদিল্লি। মঙ্গলবার বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধন আইনের সমর্থক ও বিরোধীদের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষে, পুলিশ সদস্যসহ নিহত হয়েছে অন্তত ১৩ জন। আহত হয়েছে দেড় শতাধিক। যাদের মধ্যে গুলিবিদ্ধ অন্তত ৭০ জন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে বিভিন্ন জায়গায় জারি করা হয়েছে ১৪৪ ধারা। সহিংস পরিস্থিতির কারণে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে দিল্লির বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।
মঙ্গলবার দুপুর থেকেই উত্তপ্ত ছিলো উত্তর-পূর্ব দিল্লির বিভিন্ন এলাকা। বিতর্কিত নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে রাস্তায় নামেন কয়েক হাজার মানুষ। আইনটির সমর্থকরা পাল্টা বিক্ষোভ শুরু করলে দেখা দেয় বিপত্তি।
দু'পক্ষের ধাওয়া পাল্টার ধাওয়ার এক পর্যায়ে শুরু হয় সংঘর্ষ। ইটপাটকেল ছোঁড়ার পাশাপাশি বিভিন্ন স্থানে আগুন ধরিয়ে দেয় বিক্ষোভকারীরা। লাঠিচার্জ কোরে ও কাঁদানে গ্যাস ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করে পুলিশ। ত্রিমুখী সংঘর্ষে হতাহত হন অনেকে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে জারি করা হয় ১৪৪ ধারা।
একজন পুলিশ কর্মকর্তা বলেন, পরিস্থিতি উদ্বেগের। তবে, আমরা যথেষ্ট প্রস্তুতি নিয়েছি। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্য মোতায়েন রয়েছে।
এদিন আহতদের দেখতে হাসপাতালে যান মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল। সংঘর্ষ বন্ধ করে শান্তির পথে আসতে সবার প্রতি আহ্বান জানান তিনি।
 
তিনি বলেন, বাড়ি, দোকানপাট সব জ্বালিয়ে দেয়া হচ্ছে। এটা পাগলামি ছাড়া আর কিছু নয়। এই পাগলামি বন্ধ করতে হবে। মন্দির মসজিদসহ সব জায়গায় শান্তি বৈঠকের আয়োজন করুন যাতে সব ধর্মের মানুষ অংশ নিতে পারে।
বিক্ষোভ হয়েছে হায়দ্রাবাদ ও কলকাতায়ও। মার্কিন প্রেসিডেন্টের ভারত সফরের প্রতিবাদ জানিয়ে, আহমেদাবাদের সমাবেশে ট্রাম্প ও মোদির বক্তব্যের তীব্র সমালোচনা করেন বিক্ষোভকারীরা।
একজন বলেন,  আমরা নাগরিকত্ব আইনের বিরোধী। সারা বিশ্বে ভারতীয়রা এটার প্রতিবাদ করছে। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সমর্থন পেতে নানা কৌশল নিয়েছেন। ডোনাল্ড ট্রাম্পকে সেই কৌশলে ব্যবহার করছেন। আমরা এর তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি।
বিক্ষোভের ঘটনায় উদ্বেগ জানিয়েছেন কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রাখার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, যারা ধর্মের নামে বিভাজন তৈরি করতে চায়, তাদের বয়কট করার সময় এসেছে। 

করোনা ভাইরাস লাইভ

আরও সংবাদ

করোনা ভাইরাস লাইভ ›

লাইভ অনুষ্ঠান বুলেটিন ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
সর্বশেষ সংবাদ
অনুসদ্ধান
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop