বাংলার সময় স্যালো মেশিন চুরির জন্য শাস্তি, অপমানে শ্রমিকের আত্মহত্যা

২৩-০২-২০২০, ০৩:২৪

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি

fb tw
স্যালো মেশিন চুরির জন্য শাস্তি, অপমানে শ্রমিকের আত্মহত্যা
স্যালো মেশিন চুরির অপবাদে জরিমানা ও জুতার মালা পড়িয়ে দেয়ার অপমান সইতে না পেরে এক শ্রমিক আত্মহত্যা করেছেন। গত শুক্রবার (২১ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে উপজেলার সানবাড়ী বাজারে এই গ্রাম্য সালিসের ঘটনা ঘটে। 
শনিবার (২২ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার বানারসীপুর গ্রামের লড়ির বিল থেকে রিপন মিয়া ওরফে কাইল্যা (২০) নামের এক কৃষি শ্রমিকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। 
জানা গেছে, স্যালো মেশিন চুরির ঘটনায় গ্রাম্য সালিসে মাতব্বরদের দেয়া শাস্তি ও অপমান সইতে না পেরে ওই কৃষি শ্রমিক আত্মহত্যা করেছেন। গত শুক্রবার (২১ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে গ্রাম্য সালিসের ঘটনা ঘটে। ওই কৃষি শ্রমিক জয়শ্রী ইউনিয়নের ঘিরইল গ্রামের বাসিন্দা ফজল হকের ছেলে।      
  
ধর্মপাশা থানা পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, উপজেলার জয়শ্রী ইউনিয়নের বানারসীপুর গ্রামের দক্ষিণে থাকা লড়ির বিল থেকে মাস খানে আগে ওই ইউনিয়নের বানারসীপুর গ্রামের লিটন মিয়া নামের এক কৃষকের একটি স্যালো মেশিন চুরি হয়। একই সময়ের মধ্যে আশপাশের এলাকায় আরও দুটি স্যালো মেশিন চুরির ঘটনা ঘটে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে গত মঙ্গলবার বিকেল চারটার দিকে জয়শ্রী ইউনিয়নের ঘিরইল গ্রামের বাসিন্দা রিপন মিয়া ওরফে কাইল্যার রান্নাঘর থেকে চুরি হওয়া একটি স্যালো মেশিন উদ্ধার করে উপজেলার সানবাড়ী বাজার নৌপুলিশ ফাঁড়ির সদস্যরা। পরে এটি বানারসীপুর গ্রামের এক কৃষকের জিম্মায় রাখা হয়। কিন্তু স্যালো মেশিনটির মালিক এই ঘটনায় থানায় কোনো মামলা করবেন না বলে সিদ্ধান্ত নেন। এমনকি তিনি তার চুরি হওয়া স্যালো মেশিনটি বানারসীপুর গ্রামের কৃষকের কাছ থেকে নিজ বাড়িতে নিয়ে যান এবং গ্রাম্য মাতব্বরদের কাছে এ নিয়ে সুবিচার চান। 
স্যালো মেশিন চুরির ঘটনায় গত শুক্রবার বিকেল সাড়ে চারটার দিকে সানবাড়ী বাজারে সালিস বৈঠক বসে। সালিসে সভাপতিত্ব করেন জয়শ্রী ইউনিয়নের বানারসীপুর গ্রামের বাসিন্দা আবদুস সালাম (৬০)। সালিশে উপস্থিত থাকা মাতব্বরেরা এই ঘটনায় সিদ্ধান্ত দিতে বানারসীপুর গ্রামের বাসিন্দা ও ৬নং ওয়ার্ডের সাবেক ইউপি সদস্য শুক্কুর আলীর নেতৃত্বে সাত সদস্যের একটি বোর্ড গঠন করে দেন।
বোর্ডের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী রিপন মিয়া ওরফে কাইল্ল্যা কে ২৫ হাজার জরিমানা এবং তাকে জুতার মালা পড়িয়ে সানবাড়ী বাজার ঘোরানোর সিদ্ধান্ত হয়। এছাড়া তাৎক্ষণিকভাবে রিপনের বাবা ফজল হক এই টাকা যোগাড় করতে না পারায় তিনি বিচারকদের কাছে ১০ দিনের সময় চান। পরে কৃষি শ্রমিক রিপনকে জুতার মালা পরিয়ে সানবাড়ী বাজার ঘোড়ানো হয়। গতকাল শনিবার সকাল সাতটার দিকে জয়শ্রী ইউনিয়নের লড়ির বিলে থাকা একটি গাছের ডালের সঙ্গে গলায় রশি পেছানো অবস্থায় কৃষি শ্রমিক রিপন মিয়া ওরফে কাইল্যার ঝুলন্ত লাশ দেখতে পান এলাকাবাসী। খবর পেয়ে ওইদিন দুপুরে ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।
জয়শ্রী ইউনিয়নের বানারসীপুর গ্রামের বাসিন্দা  ও ৬ নম্বর ওয়ার্ডের সাবেক ইউপি সদস্য শুক্কুর আলী বলেন, স্যালো মেশিন চুরির ঘটনায় রিপন মিয়া ওরফে কাইল্যাকে স্যালো মেশিন মালিকের হাত পা ধরে ক্ষমা চাইছে। স্থানীয় একটি মহল উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে ঘটনাটি অন্যদিকে প্রবাহিত করে আমাদেরকে নানাভাবে হয়রানি করার চেষ্টা করছে।
জয়শ্রী ইউপি চেয়ারম্যান সঞ্জয় রায় চৌধুরী বলেন, স্যালো মেশিন চুরি হওয়া নিয়ে সালিস বৈঠক হবে বিষয়টি আমাকে কেউ জানায়নি। চুরির ঘটনা গ্রাম্য সালিসে মীমাংসা করার কোনো নিয়ম নেই। ঘটনাটি খতিয়ে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া  প্রয়োজন।
ধর্মপাশা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ এজাজুল ইসলাম বলেন, গ্রাম্য সালিশে মাতব্বরদের শাস্তি ও অপমান সইতে না পেরে ঘিরইল গ্রামের বাসিন্দা এক কৃষি শ্রমিক আত্মহত্যা করেছেন বলে এলাকার মানুষজন আমাকে জানিয়েছেন। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য সুনামগঞ্জ জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

করোনা ভাইরাস লাইভ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
এক্সক্লুসিভ লাইভ
বিপিএল ২০২০

করোনা ভাইরাস লাইভ

আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop