প্রবাসে সময়কিছু প্রবাসীর অনৈতিক কাজে কাতারে বিপদে বাংলাদেশিরা, হুমকিতে শ্রমবাজার

১১-০২-২০২০, ১৯:৩৭

আনোয়ার হোসেন মামুন

fb tw
কিছু প্রবাসীর অনৈতিক কাজে কাতারে বিপদে বাংলাদেশিরা, হুমকিতে শ্রমবাজার
বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা লক্ষ লক্ষ প্রবাসী সুনামের সঙ্গে কাজ করছে। প্রবাসীদের পাঠানো বৈদেশিক মুদ্রা অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে বিরাট ভূমিকা রাখছে। এজন্য তাদের ‘রেমিট্যান্স যোদ্ধা’ বলেও অভিহিত করা হয়।
কিন্তু কিছু প্রবাসীর অবৈধ ও অনৈতিক কর্মকাণ্ডের কারণে এক দিকে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হচ্ছে, অন্যদিকে শ্রমবাজার নষ্ট হচ্ছে। নজরদারির অভাবে কাতারে বাংলাদেশিদের অপরাধপ্রবণতা উদ্বেগজনক হারে বেড়েছে।
গত বছর জুলাই মাসে কাতারের রাজধানী দোহা ন্যাশনাল এরিয়াতে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুই নেপালি নাগরিককে নির্মমভাবে হত্যা করে কয়েকজন বাংলাদেশি। সেই ঘটনায় জড়িত থাকার অপরাধে ২১ বাংলাদেশিকে গ্রেফতার করে কাতার পুলিশ।
তাছাড়া বিভিন্ন অপরাধে ২৪০ জন সাজাপ্রাপ্ত বাংলাদেশি আসামী কাতার জেলে বন্দী রয়েছে। তারমধ্যে ভিসা, চেক জালিয়াতি, অপহরণ, চুরি ছিনতাইসহ অসামাজিক কাজ অন্যতম।
সাম্প্রতিক সময়ের বাংলাদেশিদের দ্বারা সংগঠিত এ ধরনের কয়েকটি অপরাধ নিয়ে কাতার সরকার রীতিমত নড়েচড়ে বসেছে। চিন্তিত কাতারের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীও।
কিছু সংখ্যক অপরাধীদের কারণে, কাতারের বৈধ কাগজপত্র থাকার পরও বিনা অপরাধে প্রতিনিয়ত দোহা ন্যাশনাল, সারে আসমাক, ফিরুজ আব্দুল আজিজ, মুনচুরা, রায়হান, মাইজার, নাজমাসহ বিভিন্ন স্থান থেকে শত শত বাংলাদেশিকে গ্রেফতার করেছে কাতার পুলিশ।
কাতারে বাংলাদেশি অপরাধীরা ভিসার ব্যবসা, চুরি, ডাকাতি, মারামারি, হাইজ্যাক, হত্যা, ধর্ষণ, পতিতা ব্যবসা, চাঁদাবাজি, অবৈধ পানীয়, ভাড়াটে সন্ত্রাসী দিয়ে টাকা উদ্ধারের নাটক সাজিয়ে কাউকে জিম্মি, মারপিট, মুক্তিপণ দাবি, মাদক পাচার ছাড়াও মদ খেয়ে মাতলামি, প্রকাশ্যে জুয়া খেলা, এমনকি ছিনতাইয়ের মতো ছিঁচকে অপরাধে জড়িত হয়েছেন।
অপরাধীদের বেশিরভাগ অবৈধ হবার কারণে কোন ঘটনার পর তাদেরকে খুঁজে বের করা দুষ্কর। মাঝে মাঝে মদ্যপ অবস্থায় দু’একজন আটক হলেও অপরাধীদের সিন্ডিকেট তাদের উদ্ধার করে এবং গডফাদাররা বরাবরই থেকে যায় অধরা।
অন্য দেশের শ্রমিকেরা কাতারে বিনা খরচে ভিসা পেলেও বাংলাদেশিরা উচ্চ মূল্যে ভিসা ক্রয় করে আসেন। যারা উচ্চ মূল্যে ফ্রি ভিসা কিনে কাতারে আসে তাদের অধিকাংশই এখানে এসে মালিক খুঁজে পান না অথবা ভিসার মেয়াদ শেষ হওয়ার পর নবায়ন না করে অবৈধ হয়ে পড়েন।
এদিকে অবৈধ শ্রমিকদের কাজে পাওয়া গেলে নিয়োগ কর্তাকেই মোটা অঙ্কের জরিমানার বিধানের কারণে কাতারে অবৈধদের এখন আর কেউ কাজে নিতে চায় না। তাই কর্মসঙ্কটে পড়ে অনেকে অপরাধে জড়িয়ে পড়ে।
অপরদিকে বাংলাদেশিদের দ্বারা কোন অপরাধ সংগঠিত হলে ভারতীয় সাংবাদিক নিয়ন্ত্রিত স্থানীয় মিডিয়াগুলো তা ফলাও করে প্রচার করে। বাংলাদেশিদের দ্বারা সংঘটিত তুচ্ছ অপরাধও সেখানকার প্রভাবশালী দৈনিকগুলোর হেড লাইন হচ্ছে অহরহ। এ কারণে নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে বাংলাদেশ কাতার দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কে।
কমিউনিটির নেতা রাসেদুল হাসান সুমন বলেন, বর্তমান সময়ে বাংলাদেশ কমিউনিটি চরম ক্রান্তিকাল অতিবাহিত করছে। জনশক্তি রপ্তানিতে কাতার আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ দেশ। কিছু সংখ্যক অপরাধীর জন্য শ্রমবাজার নষ্ট হতে দেওয়া যাবে না। সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে অপরাধ দমনে।
কাতারে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আসুদ আহমেদ বলেন, বাংলাদেশিরা সামান্য বিষয় নিয়ে একে অপরের সাথে মারামারি তথা হত্যার মত জঘন্য অপরাধ করতেও দ্বিধা করছেন না। মাদকের মত অপরাধে জড়িয়ে যাওয়ায় বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হচ্ছে।
কাতার আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জামাল হোসেন বলেন, সাম্প্রতিক সময়ে মারামারিতে জড়িয়ে কাতার পুলিশের হাতে আটক হয়ে দেশে ফেরার পর আটক হন চট্টগ্রামের ভয়ঙ্কর সন্ত্রাসী মো. সরওয়ার। কাতার পুলিশের হাতে আটক হয়ে দুর্ধর্ষ সন্ত্রাসী ম্যাক্সন ও দুর্ধর্ষ সন্ত্রাসী একরামও সাম্প্রতিক দেশে ফিরে গেছে। এদের মত বাংলাদেশের অনেক সন্ত্রাসী কাতারে অবস্থান করছে। তারা এখানে বিভিন্ন অপরাধে জড়িত। এসব ভয়ঙ্কর সন্ত্রাসীরা কিভাবে কাতার আসলো তা বাংলাদেশ সরকারকে খতিয়ে দেখা দরকার। এসব সন্ত্রাসীরা কাতারের শ্রমবাজার বন্ধের জন্য ষড়যন্ত্র লিপ্ত।
কাতারে বর্তমান সময়ের ধরপাকড়ের ব্যাপারে কাতার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও শ্রম মন্ত্রণালয়সহ সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের সাথে যোগাযোগ অব্যাহত রেখেছে বাংলাদেশ দূতাবাস। তাই বৈধ কাগজপত্র সাথে নিয়ে চলাচলের পাশাপাশি যে কোন সমস্যা সমাধানের জন্য দূতাবাসে যোগাযোগ করার আহ্বান জানান রাষ্ট্রদূত।

আরও পড়ুন

অফলাইনে বাংলায় মিলবে ‘ট্রান্সলিটারেশন সাপোর্ট’২০২২ সালে মহাকাশে নভোচারী পাঠাবে বাংলাদেশফেসবুকে ‘ভুয়া’ চেহারা চিনবেন যেভাবে
সময় সংবাদের লেখক হতে পারেন আপনিও। আপনার আশপাশে ঘটে যাওয়া যেকোনো ঘটনা, ভ্রমণ অভিজ্ঞতা, ক্যাম্পাসের খবর, তথ্যপ্রযুক্তি, বিনোদন, শিল্প-সংস্কৃতি ইত্যাদি বিষয়ে লেখা পাঠান: somoytvweb@gmail.com ই-মেইলে।

আরও সংবাদ

বাংলার সময়
বাণিজ্য সময়
বিনোদনের সময়
খেলার সময়
আন্তর্জাতিক সময়
মহানগর সময়
অন্যান্য সময়
তথ্য প্রযুক্তির সময়
রাশিফল
লাইফস্টাইল
ভ্রমণ
প্রবাসে সময়
সাক্ষাৎকার
মুক্তকথা
বাণিজ্য মেলা
রসুই ঘর
বিশ্বকাপ গ্যালারি
বইমেলা
উত্তাল মার্চ
সিটি নির্বাচন
শেয়ার বাজার
জাতীয় বাজেট
বিপিএল
শিক্ষা সময়
ভোটের হাওয়া
স্বাস্থ্য
ধর্ম
চাকরি
পশ্চিমবঙ্গ
ফুটবল বিশ্বকাপ
ভাইরাল
সংবাদ প্রতিনিধি
বিশ্বকাপ সংবাদ
Latest News
এক্সক্লুসিভ লাইভ
বিপিএল ২০২০
আপনিও লিখুন
ছবি ভিডিও টিভি আর্কাইভ
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
GoTop